শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ১১:৪৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
Logo মানবিক আওয়ামী যুবলীগ গড়ার প্রত্যয় রাজ পথে Logo বাউফলে বিধবা নারীকে হয়রানি, আদালতে মামলা। Logo শারদীয় দুর্গাপূজার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন পল্লবী থানার ওসি পারভেজ ইসলাম। Logo বরগুনার আমতলী হতে র‌্যাবের হাতে একজন গাঁজা ব্যবসায়ী গ্রেফতার। Logo সুনামগঞ্জে সফল নারী উদ্যোক্তা সম্মাননা পেলেন তৃষ্ণা আক্তার রুশনা Logo রাঙ্গাবালীর চরমোন্তাজে ওয়াল্টন এক্সক্লুসিভ শোরুম উদ্বোধন Logo গলাচিপার উলানিয়া বন্দর বনিক সমিতির নবগঠিত কমিটির সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত Logo কাতারে এসএম সাগরের জমজমাট মাদক ব্যবসা, ঝুঁকিতে অভিবাসন খাত Logo মুরাদনগরে জুমার খুৎবার আযানকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ১৫ Logo বারদী ইউনিয়নের মাদ্রাসা এতিমখানা সহ বিভিন্ন অসহায়দের মাঝে লায়ন বাবুলের উদ্যোগে রান্না করা খাবার বিতরণ

শিশুপার্ক ও অটোস্ট্যান্ডের অজুহাতে মুন্সীগঞ্জে সরকারি জলাশয় দখলের চেষ্টা

মুন্সীগঞ্জ জেলা প্রতিনিধিঃ / ১০১ বার পঠিত
সময় : বুধবার, ৯ জুন, ২০২১, ৭:৪০ অপরাহ্ণ

মুন্সীগঞ্জের টঙ্গীবাড়ীতে সহকারী কমিশনা(ভূমি) ও ইউএনও অফিসের জোগ সাজসে অটোস্ট্যান্ড ও শিশু পার্কের অজুহাতে জলাশয় ভরাট করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।
সরকারের উচ্চ পর্যায়ের সিদ্ধান্ত ছাড়াই স্থানীয় স্বার্থান্বেসী নেতৃত্বে স্থানীয় একটি মহলের পরামর্শে এ উদ্যোগ নেয়া হয়েছে বলে স্থানীয়রা জানায়।
বাঁধা না পড়লে কয়েক দিনের মধ্যেই জলাশয়টির মধ্যে ড্রেজারের বালি পড়বে বলেন নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ইউএনও অফিসের এক কর্মকর্তা সাংবাদিকদের
জানিয়েছেন, এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাহিদা পারভিন সুবিধা ভোগিদের নিয়ে কয়েক দফা বৈঠক করেছেন বলে জানান। ওই জলাশয়ের
লিজধারী দখলদার আওলাদ মাঝিা আওলাদ আরো বলেন, অটোস্ট্যান্ড ও শিশুপার্ক
নির্মাণের নামে জলাশয়টি ভরাট করে ভাগ বাটোয়ারা হয়ে দখল হয়ে যাবে। জলাশয়টি ভরাট না করার দাবী জানিয়ে মুন্সীগঞ্জ জেলা প্রশাসক এর নিকট
বুধবার আবেদন করেছে স্থানীয় শতাধিক বাসিন্দা ও ব্যবসায়ী।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, টঙ্গীবাড়ী উপজেলা সদর সংলগ্ন টঙ্গীবাড়ী মৌজার ১নং খতিয়ানভুক্ত ৫৭ নং দাগের ৭৭ শতাংশ সরকারি ৭০০ ফুট লম্বা, ৪০ ফুট প্রসস্থ ও ১৫ ফুট গভীর জলাশয়টির চারিপার দিয়ে মালিকানা ভূমির ওপর কাচা বাড়ি ও বহুতল
ভবন নির্মাণ করে শতাধিক পরিবার বসবাস করে আসছে। জলাশয়ের পাশ দিয়ে
ঢাকা-টঙ্গীবাড়ী মহাসড়কের পাশে মালিকানা ভূমিতে ১০টি পাকা মার্কেটে
বিভিন্ন শ্রেণির ব্যবসা প্রতিষ্ঠান রয়েছে। এলাকাবাসি জানিয়েছে গভীর
সরকারি জলাশয়টি ছাড়া ১ কিলোমিটার এলাকায় আর কোন পুকুর ডোবা
নেই পানি সংগ্রহ করার মতো। এছাড়া জলাশয়টি ভরাট করে অটোস্ট্যান্ড ও
শিশুপার্ক করলে পরিবেশ নষ্ট হয়ে জনবসতি বিঘ্নিত ঘটবে। স্থানীয় ব্যবসায়ী ও
বাসিন্দা আজিজ মাঝি, আওলাদ মাঝি, সাফয়িা বেগম, জসীম শেখ, উজ্জল,
রুমু, বাবুল শেখ ও জামাল হালদারসহ শতাধিক ব্যক্তি জানান, জলাশয় ভরাট করে রকম
পরিবর্তন করলে পরিবেশ নষ্ট হয়ে স্থানীয়দের ব্যবসা ও বসবাসে চরম বিপর্যয়
নেমে আসবে। পথে বসবে ৫০ জন ক্ষুদ্র ও মাঝারি ব্যবসায়ী। ইতোমধ্যেই রাস্তার
পাশে জেলা পরিষদ থেকে লিজ নিয়ে লেপ তোষক, ফ্রিজ মেরামত, গ্রিল নির্মাণ,
ইলেক্ট্রনিক সামগ্রী, মিষ্টির দোকানী, পুড়ান লোহা,টিন ও রিক্সা সাইকেলের
পার্স বিক্রয়ের দোকানদাররা চিন্তিত হয়ে পড়েছে। তারা জানিয়েছে জলাশয়টি
ভরাট করে রাস্তার পাশ থেকে দোকানগুলো উচ্ছেদ করা হলে তাদের পরিবার না খেয়ে
মরবে। জলাশয়ের পূর্ব ও উত্তর পারের বাসিন্দা আওলাদ মাঝি ও বাবুল শেখ জানান, জলাশয়ে সরকারি ৭৭ শতাংশের সাথে যোগ হয়ে তাদের মালিকানা জায়গা
রয়েছে। সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে সরকারি ও মালিকানা মিলিয়ে প্রায় ৯০
শতাংশের অধিক এই জলাশয়ে দেশী প্রজাতির মাছ ও কচুরিপণা ১২ মাসই
থাকে। টঙ্গীবাড়ী উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাহিদা পারভিন জানিয়েছেন
যানজট এড়াতে অটোস্ট্যান্ড করার দাবী স্থানীয়দের রয়েছে। পাশাপাশি শিশুপার্ক
করতে জলাশয়টি ভরাট করার উদ্যোগ ও সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও সংবাদ

ফেসবুকে আমরা

Theme Customized By Theme Park BD